শ্রীদেবী:বাথটাবের পানিতে দম আটকে মৃত্যু হয়েছে শ্রীদেবীর। 

শ্রীদেবীর মৃত্যুর কারণ জানা গেছে 

শ্রীদেবীশ্রীদেবী• বাথটাবের পানিতে দম আটকে মৃত্যু হয়েছে শ্রীদেবীর। 
• ময়নাতদন্ত ও ফরেনসিক পরীক্ষার প্রতিবেদন থেকে তা-ই জানা গেছে। 
• দুবাই পুলিশের কাছ থেকে এ তথ্য পেয়েছে খালিজ টাইমস।

হৃদ্‌রোগ নয়, দুবাইয়ের জুমেইরাহ এমিরেটস টাওয়ারের বাথরুমের বাথটাবের পানিতে দম আটকে মৃত্যু হয়েছে শ্রীদেবীর। ময়নাতদন্ত ও ফরেনসিক পরীক্ষার প্রতিবেদন থেকে তা-ই জানা গেছে। আজ সোমবার দুবাই পুলিশের কাছ থেকে এ তথ্য পেয়েছে খালিজ টাইমস। স্থানীয় এ সংবাদমাধ্যম আরও জানিয়েছে, শ্রীদেবীর রক্তের নমুনায় অ্যালকোহল পাওয়া গেছে। বিশেষজ্ঞদের মতে, এটি শুধুই দুর্ঘটনা। এরই মধ্যে ময়নাতদন্ত ও ফরেনসিক প্রতিবেদন শ্রীদেবীর পরিবারের হাতে তুলে দেওয়া হয়েছে। এরপর শ্রীদেবীর ডেথ সার্টিফিকেট দিয়েছে সংযুক্ত আরব আমিরাতের প্রশাসন।

আজ সোমবার স্থানীয় সময় বেলা সোয়া একটায় দুবাইয়ে কর্মরত ভারতীয় দূতাবাসের একজন কর্মকর্তা এবং বনি কাপুরের আত্মীয় সৌরভ মালহোত্রাকে দুবাইয়ের রশিদ হাসপাতালের মর্গে ডেকে পাঠানো হয়। কিছুক্ষণ পর তাঁরা সেখান থেকে বেরিয়ে আসেন। বেলা দুইটায় আবারও তাঁদের দেখা করতে বলা হয়। তখন তাঁদের জানানো হয়, ঘণ্টা দু-একের মধ্যে শ্রীদেবীর ডেথ সার্টিফিকেট ইস্যু করা হবে। পাশাপাশি আরও জানানো হয়, ফরেনসিক দপ্তর শ্রীদেবীর মৃত্যুর কারণের ব্যাপারে নিশ্চিত হয়েছে। তাই দ্বিতীয়বারের জন্য শ্রীদেবীর দেহের ময়নাতদন্ত করার প্রয়োজন নেই।

শ্রীদেবীর ফরেনসিক পরীক্ষার রিপোর্টশ্রীদেবীর ফরেনসিক পরীক্ষার প্রতিবেদনগত শনিবার রাতে দুবাইয়ের জুমেইরাহ এমিরেটস টাওয়ার থেকে শ্রীদেবীর অচেতন দেহ নিয়ে যাওয়া হয় রশিদ হাসপাতালে। সেখানে চিকিৎসকেরা জানান, অনেকক্ষণ আগেই শ্রীদেবীর মৃত্যু হয়েছে।

বিভিন্ন সূত্র থেকে জানা গেছে, দুবাইয়ের স্থানীয় সময় বিকেল চারটায় শ্রীদেবীর মরদেহ নিয়ে বিশেষ বিমান মুম্বাইর উদ্দেশে রওনা হবে। এই মরদেহ আনার জন্য ভারতের শিল্পপতি অনিল আম্বানির ১৩ আসনের ব্যক্তিগত জেট দুবাই বিমানবন্দরে গতকাল রোববারই পৌঁছে গেছে।

মন্তব্য করুন

অনুগ্রহ করিয়া এখানে আপনার মন্তব্য লিখুন!
অনুগ্রহ করিয়া এখানে আপনার নাম লিখুন!