রিকশাচলককে মারধর করা সেই নারীকে আওয়ামী লীগ থেকে বহিস্কার

গতকাল মঙ্গলবার সন্ধার পর থেকে ফেসবুকে একপি ভিডিও ভাইরাল হয়। ভিডিওতে দেখা যায় একজন নারী রিকশাচালককে উদ্ধত ভাষায় গালাগাল করছিলেন।

কিল-ঘুষি এমনকি লাথিও মারেন ওই নারী। পরে এক পর্যায়ে রাস্তার পাশে দাড়িয়ে থাকা একজন বয়স্ক পুরুষ প্রতিবাদ জানালে ওই লোকের সাথে বিদ্রুপ আচরণ করেন সেই নারী। রিকশায় উঠেও আবার ফের মুরুব্বী লোকের দিকে তেড়ে নামেন।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এ নিয়ে তুমুল সমালোচনা হয়। জানা যায়, ওই মহিলার নাম সুইটি আক্তার শিনু।তিনি রুপনগর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদিকা। এ নিয়ে তিনি ফেসবুকে পোস্টও করেন।

তার এই ঘটনায় যারা সমলোচনা করছেন তাদের বিরুদ্ধে পাল্টা ব্যবস্থা নেওয়ারও হুমকি দেন ওই নারী। তিনি লিখেন, আমি আওয়ামী লীগের রুপনগর ওয়ার্ড সাধারণ সম্পাদিকা। আজকের সকালের (মঙ্গলবার) ঘটনা অনাকাঙ্খিত।

যারা এটা নিয়ে আমার প্রিয় দল আওয়ামী লীগকে জড়িয়ে সমালোচনা করছেন তাদের বিরুদ্ধে মামলা করবো।

রিকশাচালককে পেটানোর অভিযোগে ঢাকার ৭ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের মহিলা বিষয়ক সম্পাদিকা সুইটি আক্তার শিনুকে বহিষ্কার করা হয়েছে। দলীয় শৃঙ্খলা ভঙ্গের দায়ে তাকে বহিষ্কার করা হয় বলে জানা গেছে।

এই ঘটনায় সুইট আক্তার শিনুকে আওয়ামী লীগ থেকে বহিস্কার করা হয়েছে। আজ বুধবার ৭ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি কাজী আব্দুল হাই হারুন ও সাধারণ সম্পাদক মকবুল হোসেন তালুকদার স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য নিশ্চিত করা হয়।

কোনো স্বয়ংক্রিয় বিকল্প পাঠ্য উপলব্ধ নেই৷

বিজ্ঞপ্তিতে উল্লেখ করা হয়, সুইটি আক্তার শিনুর সাম্প্রতিক আচরণ সংগঠনের সুনাম নষ্ট করছিলো। তাকে এর আগে বারবার সতর্ক করা হয়েছে। কিন্তু তিনি সংশোধন হননি। বরং একই ধরনের ঘটনা ঘটিয়েই যাচ্ছিলেন। তাই ১১ ডিসেম্বর নির্বাহী কমিটির বৈঠকের সিদ্ধান্তে সুইটিকে মহিলা সম্পাদিকা ও প্রাথমিক সদস্যপদ থেকে অব্যাহতি দেওয়া হয়েছে।

গত বুধবার বিকেলে ফেসবুকে একটি ভিডিও ছড়িয়ে পড়ে। সেখানে দেখা যায় রিকশাচালকের ওপর চড়াও হয়েছেন এক নারী। তিনি ওই রিকশার যাত্রী ছিলেন। দ্রুত রিকশা না চালানোর কারণে তিনি চটে যান। ভিডিওতে রিকশাচালকের ওপর মারমুখী অবস্থায় দেখা যায় তাকে।

এক পর্যায়ে প্রকাশ্য দিবালোকে সবার সামনে রিকশা থেকে নেমে চালকের গায়ে হাতও তোলেন ওই নারী। আবারো রিকশায় উঠে হাতের ব্যাগ দিয়ে চালককে মারতে উদ্যত হন। ক্ষুব্ধ হয়ে তাকে লাথি ছুঁড়তেও দেখা যায়।

ভিডিওতে আরও দেখা যায়, পথচারীরা ওই নারীর আচরণের প্রতিবাদ করেন। তবে কোনো প্রতিবাদেই নিজের অবস্থান থেকে সরেননি তিনি। উল্টো পথচারীদের সঙ্গেও ঝগড়ায় লিপ্ত হয়ে পড়েন তিনি

মন্তব্য করুন

অনুগ্রহ করিয়া এখানে আপনার মন্তব্য লিখুন!
অনুগ্রহ করিয়া এখানে আপনার নাম লিখুন!