বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বরের ওপর হামলা, হাসপাতালে ভর্তি

ঢাকা-৩ আসনের ধানের শীষের প্রার্থী বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায়ের ওপর হামলার ঘটনা ঘটেছে। বিএনপির অভিযোগ, আওয়ামী লীগের নেতা-কর্মীদের এই হামলায় তাদের ২৫-৩০ জন আহত হয়েছেন। আজ মঙ্গলবার বিকেল সাড়ে পাঁচটায় দক্ষিণ কেরানীগঞ্জের চুনকুটিয়া এলাকায় ওই হামলার ঘটনা ঘটে। আহত গয়েশ্বরকে রাজধানীর একটি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

একটি বেসরকারি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন গয়েশ্বর চন্দ্র রায়। ঢাকা, ২৫ ডিসেম্বর। ছবি: সংগৃহীতএকটি বেসরকারি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন গয়েশ্বর চন্দ্র রায়। ঢাকা, ২৫ ডিসেম্বর। ছবি: সংগৃহীত

দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ থানা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক মোজাদ্দেদ আলী প্রথম আলোকে বলেন, তাঁরা বিকেল চারটার পর ওই এলাকায় নির্বাচনী প্রচার চালাচ্ছিলেন। বিকেল সাড়ে পাঁচটার দিকে স্থানীয় আওয়ামী লীগ, যুবলীগ ও ছাত্রলীগের নেতা-কর্মীরা লাঠিসোঁটা ও হকিস্টিক নিয়ে তাঁদের ওপর হামলা চালান। মোজাদ্দেদ আলীর দাবি, এই হামলায় গয়েশ্বরসহ তাঁদের ২৫ থেকে ৩০ জন নেতা-কর্মী আহত হয়েছেন।

দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ যুবদলের সভাপতি মোকাররম হোসেন বলেন, আহত গয়েশ্বরকে রাজধানীর বিজয়নগরের ইসলামী ব্যাংক হাসপাতালে ও অন্যদের বিভিন্ন স্থানে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে।

কেরানীগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের সদস্য ও সেখানকার আওয়ামী লীগের প্রার্থী নসরুল হামিদ বিপুর নির্বাচন পরিচালনা কমিটির প্রধান সমন্বয়ক শাকুর হোসেন প্রথম আলোকে বলেন, ‘বিষয়টি আমি শুনিনি। আমাদের নেতা-কর্মীদের বিরুদ্ধে ঢালাও মিথ্যা অভিযোগ দেওয়া হচ্ছে।’ তিনি আরও বলেন, যদি হামলার ঘটনাটি ঘটে থাকে, তাহলে সেটি বিএনপির অভ্যন্তরীণ দ্বন্দ্বের কারণে ঘটতে পারে।

মন্তব্য করুন

অনুগ্রহ করিয়া এখানে আপনার মন্তব্য লিখুন!
অনুগ্রহ করিয়া এখানে আপনার নাম লিখুন!