পরিবেশ সুষ্ঠু হলে ৩০০ আসনেই প্রার্থী দেবো: চরমোনাই পীর

ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের আমির ও চরমোনাই পীর মুফতি সৈয়দ মুহাম্মদ রেজাউল করীম বলেছেন,ইসলামী আন্দোলন একটি নিয়মতান্ত্রিক গণমুখী রাজনৈতিক দল। নির্বাচনের সুষ্ঠু পরিবেশ তৈরি হলে ৩০০ আসনেই হাতপাখা প্রতীকে প্রার্থী দেবো

শুক্রবার (৫ অক্টোবর) বিকালে রাজধানীর সোহরাওয়ার্দী উদ্যানের মহাসমাবেশে তিনি এসব কথা বলেন।

রেজাউল করীম বলেন, ‘বিএনপির নেতারা গত সমাবেশে বলেছেন, আমরা প্রয়োজনে শয়তানের সঙ্গেও জোট করতে রাজি। আপনারা শয়তানের সঙ্গে জোট করতে চান কি শয়তানি করার জন্য? আপনাদের আমরা দুইবার ক্ষমতায় এনেছিলাম ভোট দিয়ে। কিন্তু আপনারা দুর্নীতি ছাড়া দেশকে কিছুই দিতে পারেননি।’

চরমোনাই পীর বলেন, ‘বর্তমান সিইসি একজন রোবট, তাকে যা শিখিয়ে দেয়া হয় তাই করেন। এই রোবটকে মানুষ আর দেখতে চায় না। জনগণ নিরপেক্ষ নির্দলীয় ইসি চায়।’

তিনি বলেন, ‘ইভিএম হলো আওয়ামী লীগকে বিজয়ী করার মেশিন। এই ইভিএম কেনার জন্য চার হাজার কোটি টাকা খরচ করা হয়েছে। এগুলো আপনাদের বাবার, দাদার টাকা নয়, জনগণের টাকা। জনগণ তাদের টাকার হিসাব একদিন পাই পাই নেবে।’

ইসলামী আন্দোলনের কেন্দ্রীয় নেতা দেলাওয়ার হোসাইন সাকীর সঞ্চালনায় সমাবেশে আরও বক্তব্য রাখেন— দলের প্রেসিডিয়াম সদস্য সৈয়দ মোসাদ্দেক বিল্লাহ মাদানী, মুফতি সৈয়দ মুহাম্মদ ফয়জুল করীম, নূরুল হুদা ফয়েজী, মহাসচিব মাওলানা ইউনুছ আহমাদ, আশরাফ আলী আকন, এটিএম হেমায়েত উদ্দিন, মাহবুবুর রহমান, মাওলানা আব্দুল কাদির, মাওলানা ইমতিয়াজ আলম, শেখ ফজলে বারী মাসউদ, আশরাফুল আলম, খালিদ সাইফুল্লাহ, অ্যাডভোকেট শেখ আতিয়ার রহমান, কেএম আতিকুর রহমান, আহমদ আবদুল কাইয়ূম, মাওলানা নেছার উদ্দিন, মাওলানা লোকমান হোসাইন জাফরী ও মাওলানা দেলাওয়ার হোসাইন সাকী।

-একে

মন্তব্য করুন

অনুগ্রহ করিয়া এখানে আপনার মন্তব্য লিখুন!
অনুগ্রহ করিয়া এখানে আপনার নাম লিখুন!