ঈমান তো নয় জেটবিমান :আবুল কালাম আজাদ

স্বর্গবাস কি সহজ সরল
দুইয়ে দুইয়ে যেমন চার ;
সেই আশায় কি স্বর্গলোভী
মার খেয়ে যায় বেশুমার !
জালিম জনের হুঙ্কারে আর
নির্যাতিতের চিৎকারে,
‘ফাসাদ’ বলে এড়িয়ে চলে,
পুণ্য জমায় ফুৎকারে !
‘আমল’ অর্থ ‘কাজ’ হলেও
মুখ নাড়াই যে আমল কয়,
তার এমন সব বুজুর্গিতে
অনেক ঈমান ধ্বংস হয় !
বঞ্চনা আর উপেক্ষাতে
দুনিয়াটা যার জাহান্নাম–
লেজ গুটিয়ে জপ করে ভাই
কি হবে তার প্রভুর নাম !
কষ্টকাহন, দুখের দাহন
মন গহীনে চাষ করে —
কেমনে যাবে স্বর্গে যে সে
কোন দয়ালের লেজ ধরে !
বদমাশ আর বাটপারেরা
তাদের সাথেই জোট ধরে,
ন্যায়-নীতির নিকুচি করে
ভেল্কি দেখায় হুট করে !
লাঞ্ছনা আর গঞ্জনার সব
দায় নাকি হায় কপালটার,
তাইতো ঝাঁটা, সতীনকাঁটা
ভাগ্যপোড়া জাতিটার !
পূর্বকালে বাপ কি দাদা
ছিল নাকি কোন বীর পুরুষ,
সেই খুশিতে সয় অপমান
হারিয়ে নিজের মান ও হুঁশ ।
আসবে আবার বীর মেহেদী
সেই খুশিতে সব ভুলে ,
পুণ্য জমায় হিসাব কষে
নেয় নিক কেউ ছাল তুলে ।
জুলুম শোষণ নির্যাতনের
নাই প্রতিবাদ যার ঘটে,
তার মুখেতেই নফল বেদআ’ত
ফতোয়া নিয়ে খই ফোটে ।
আকাশ কাঁপে বাতাস কাঁপে
মানবতার ধ্বংসে আজ,
সেই বুজুর্গের বুক কাঁপে না,
নাই কোনো তার একটু লাজ !
লজ্জাহারা নপুংসকের
কেমনে থাকে ঠিক ঈমান,
যেই ঈমানে স্বর্গে যাবে
সেইটাতো নয় জেট বিমান !

মন্তব্য করুন

অনুগ্রহ করিয়া এখানে আপনার মন্তব্য লিখুন!
অনুগ্রহ করিয়া এখানে আপনার নাম লিখুন!