আদালত অবমাননার মামলায় জামায়াত নেতা হামিদুর রহমান আযাদ কারাগারে

আদালত অবমাননার মামলায় ট্রাইব্যুনালে আত্মসমর্পণ করার পর জামায়াত নেতা হামিদুর রহমান আযাদকে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

আজ বুধবার দুপুর ১২টার বিচারপতি মো: শাহিনুর ইসলামের নেতৃত্বে তিন সদস্যের আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল এ আদেশ দেয়।

বিষয়টি সাংবাদিকদের জানান হামিদুর রহমান আযাদের আইনজীবী আব্দুস সুবহান তরফদার।

আইনজীবীরা জানান, ২০১৩ সালের মার্চ মাসে বিচারাধীন বিষয়ে মন্তব্য করায় জামায়াতে ইসলামীর ঢাকা মহাগর শাখার আমীর রফিকুল ইসলাম খান, নির্বাহী পরিষদ সদস্য হামিদুর রহমান আযাদ ও মো: সেলিম উদ্দিনের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করে ট্রাইব্যুনাল। ওই বছরের ২১ মার্চের মধ্যে আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালে হাজির করার নির্দেশ দেয়া হয়।

২০১৩ সালের ৭ ফেব্রুয়ারি জামায়াতের এ তিন নেতার বিরুদ্ধে কেন আদালত অবমাননার অভিযোগ এনে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেয়া হবে না তা জানতে চেয়ে রুল জারি করে ট্রাইব্যুনাল। এরপর এ বিষয়ে তারা ব্যাখ্যা না দেয়ায় তাদের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করা হয়।

২০১৩ সালে ২০ জুন হামিদুর রহমান আযাদকে ৩ মাসের কারাদণ্ড ও ৩ হাজার টাকা জরিমানা করেন ট্রাইব্যুনাল।

আরো পড়ুন :
বৈরী পরিস্থিতি মোকাবেলা করেই দ্বীনকে বিজয়ী করতে হবে : মহানগর জামায়াত
নয়া দিগন্ত অনলাইন, ২১ জুলাই ২০১৮
জামায়াতে ইসলামীর কেন্দ্রীয় কর্মপরিষদ সদস্য ও ঢাকা মহানগরী উত্তরের সেক্রেটারি ড. মুহা: রেজাউল করিম বলেছেন, ইসলামী আন্দোলনের পথচলা কখনোই নির্বিঘ্ন ছিল না বরং সীমাহীন বাধা-প্রতিবন্ধকতা মোকাবেলা করেই দ্বীনের বিজয় সূচিত হয়েছে। আমাদের দেশের বর্তমান প্রেক্ষাপট তা থেকে মোটেই আলাদা নয়। তাই দ্বীনকে বিজয়ী আদর্শ হিসেবে প্রতিষ্ঠা করতে হলে সকল বৈরী পরিস্থিতি ও জুলুম-নির্যাতন উপেক্ষা করেই সামনের দিকে এগিয়ে যেতে হবে। তিনি দ্বীন প্রতিষ্ঠার প্রত্যয়ে দাওয়াতি কার্যক্রম সম্প্রসারণের জন্য সবার প্রতি আহ্বান জানান।

গতকাল রাজধানীর একটি মিলনায়তনে জামায়াতে ইসলামী ঢাকা মহানগরী উত্তরের হাতিরঝিল পূর্ব থানা আয়োজিত সাবেক ছাত্রনেতাদের সাথে মতবিনিময় সভা ও প্রীতিভোজ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি এ কথা বলেন। থানা আমির অ্যাডভোকেট জিল্লুর রহমানের সভাপতিত্বে ও সেক্রেটারি খন্দকার রুহুল আমীনের পরিচালনায় অনুষ্ঠানে স্থানীয় নেতারা উপস্থিত ছিলেন।

নয়া দিগন্ত

মন্তব্য করুন

অনুগ্রহ করিয়া এখানে আপনার মন্তব্য লিখুন!
অনুগ্রহ করিয়া এখানে আপনার নাম লিখুন!