তবুও সকাল হবে : মো:মোশারফ হোসেন

রাত্রি গভীর!
কোমায় জাতি ঘুমায়!
চারদিকে ঝি ঝি পোকার কোলাহল
ভুতোড়ে অবস্থায় কাপছে বাঁশতল।

দূরে হঠাত বন্দুক যুদ্ধের আতংক!
কেউ মেলাতে পারছেনা
কারো জীবনের অংক!

কার যেন কোল হয়ে গেল খালি
ধরায় কাদে বালি,
তীব্র ক্রোধের বাষ্প ভেসে আসে
হায়েনার অশ্লীল গালি।।

জীবনের পরিণতি যেন
সাজানো প্রতিবেদনে,
ন্যায় বিচার কাদে ঘুমরে
অব্যক্ত কষ্টে হৃদয় ছেদনে।

বন্দুক আর পিস্তলের ধোয়া
রাতের সাথে মিলে একাকার!
জীবনের শ্বাসনালী বন্ধ প্রায়
চারদিকে যৌথ অন্ধকার!

চারদিকে হুংকার হিংস্র বন্যপ্রাণিদের
একজন আরেকজনের শিকার,
মানবতা জীবন-মৃত্যুর সন্ধি:ক্ষণে
সকলে এক বাক্যে করে স্বীকার।

সবার জীবনই ছন্দহীন এলোমেলো
যত সাজ-গোজ
সীমানার ওপাড়ে চলে গেল!

নদীর পাড়ে নারীর আর্তচিতকার
ধর্ষক বুঝি সব লুটে নিল,
এ যে জাতির ইজ্জত হানি
গায়ে কলংকের দাগ দিল।

নেশার আসর বসেছে চুপে
সমাজের চোরা গলিতে,
সন্ত্রাস অস্ত্র তুলে রক্ত চোখে
অবাধে চলে ভরা থলিতে।

অরক্ষিত জাতির বেড়া গভীর দিনেও
কেটেছে ঘরের সিধ,
রাতের আধারে ভাঙ্গতে চলেছে
বাংলাদেশের ভিত।

কখনো আলোকছটা দেখে
মনে হয়
এই বুঝি সুবেহ সাদিক!
কিন্তু না!
নতুন আধারে ঢেকে দেয়
আমাদের চারদিক।

তবুও সকাল হবে নিশ্চয়
গভীর রাতের পরে,
দিনের আলো করবে প্রবেশ
বাংলার প্রতিটি ঘরে।

রক্তের দাগ চুষে নিবে ভূমি
জীবনের কোলাহল জমবে দারুণ!
অন্ধকারে তাসবিহর দানা গুনি
নিশ্চিন্ত নিরাপদ ভবিষ্যতের
আশায়
তবুও সকাল হবে এই ভেবে
আল্লাহর, রাসুলের ভাষায়।।

মন্তব্য করুন

অনুগ্রহ করিয়া এখানে আপনার মন্তব্য লিখুন!
অনুগ্রহ করিয়া এখানে আপনার নাম লিখুন!